Voice of SYLHET | logo

১০ই মাঘ, ১৪২৮ বঙ্গাব্দ | ২৩শে জানুয়ারি, ২০২২ ইং

সিলেটে স্বতন্ত্রের মোড়কে বিএনপি!

প্রকাশিত : November 20, 2021, 14:39

সিলেটে স্বতন্ত্রের মোড়কে বিএনপি!

নিউজ ডেস্কঃ সিলেটসহ দেশজুড়ে চলছে ইউনিয়ন পরিষদ নির্বাচন। ধাপে ধাপে এ নির্বাচনের ভোটগ্রহণ সম্পন্ন করছে ইলেকশন কমিশন। ইতোমধ্যে শেষ হয়েছে দুটি ধাপ। তৃতীয় ধাপে ভোটগ্রহণ অনুষ্ঠিত হবে আগামী ২৮ নভেম্বর। এ দিন সিলেট জেলায় ১৬টি ও পুরো বিভাগে ৭৭টি ইউনিয়নে ভোটগ্রহণ অনুষ্ঠিত হবে।

এ ধাপের ভোটগ্রহণের আর মাত্র ৮ দিন বাকি। সিলেটের ১৬টি ইউনিয়নের চেয়ারম্যান প্রার্থীরা চষে বেড়াচ্ছেন মাঠ। ঘুরছেন ভোটারদের দ্বারে দ্বারে। চলছে মিছিল-সভা, গণসংযোগ ও শোডাউন।

এদিকে, চলমান ইউনিয়ন পরিষদ নির্বাচনে অংশগ্রহণ না করার সিদ্ধান্ত নিয়েছে বাংলাদেশ জাতীয়তাবাদী দল- বিএনপি। কিন্তু দলীয় এমন সিদ্ধান্ত থাকলেও স্বতন্ত্রের মোড়কে বেশিরভাগ ইউনিয়নে নির্বাচনে অংশগ্রহণ করেছেন বিএনপি নেতারা। সিলেটে সম্পন্ন হওয়া প্রথম ও দ্বিতীয় ধাপে সিলেটের বিভিন্ন ইউনিয়নে চেয়ারম্যান পদে বিএনপি নেতারা অংশগ্রহণ করে বিজয়ীও হয়েছেন। এ ক্ষেত্রে দলীয় ভোট ব্যাংকে কাজে লাগিয়েই তারা জয়লাভ করেছেন। তৃতীয় ধাপেও সিলেটের বেশিরভাগ ইউনিয়নে চেয়ারম্যান প্রার্থী হয়েছেন অনেক বিএনপি নেতা। তাই রাজনৈতিক বিশ্লেষক ও বোদ্ধারা বলছেন- ইউপি নির্বাচনে সিলেটে বিএনপি মাঠে আছে, আবার নেইও!
গত ১১ নভেম্বর অনুষ্ঠিত দ্বিতীয় ধাপের ইউপি নির্বাচনে সিলেটের তিনটি উপজেলা কোম্পানীগঞ্জ, সদর ও বালাগঞ্জের ১৫টি ইউনিয়নে ভোটগ্রহণ সম্পন্ন হয়। এর মধ্যে দুই বিদ্রোহীসহ আওয়ামী লীগ পেয়েছে ৮টি ইউনিয়নে জয়। আর ৫টিতে জয় হয়েছে বিএনপিপন্থী প্রার্থীর। এ কারণে তৃতীয় ধাপের নির্বাচনে এসে আরও বেশি প্রার্থী হয়েছেন বিএনপি নেতারা। এবার সিলেটের তিন উপজেলা- গোয়াইনঘাট, জৈন্তাপুর ও দক্ষিণ সুরমার ১৬ ইউনিয়ন পরিষদ নির্বাচনের প্রায় সবক’টিতেই বিএনপি নেতারা ভোটযুদ্ধে নেমেছেন। কোনো কোনো ইউনিয়নে রয়েছেন একাধিক প্রার্থীও।
এদিকে, সিলেটে ইউনিয়ন পরিষদ নির্বাচনে আওয়ামী লীগের প্রার্থীদের দলীয় ভোটে ভাগ বসাচ্ছেন বিদ্রোহীরা। এ কারণে ‘সহজেই’ জয় ঘরে তুলতে বিএনপি নেতারা দলীয় ভোটকে পুঁজি করে চেয়ারম্যান পদে দাঁড়িয়েছেন।

খোঁজ নিয়ে জানা গেছে, সিলেটের জৈন্তাপুর ও গোয়াইনঘাট উপজেলার প্রায় প্রতিটি ইউনিয়নেই বিএনপিপন্থী প্রার্থীরা নির্বাচনে সক্রিয় রয়েছেন। দক্ষিণ সুরমায়ও রয়েছেন একাধিক প্রার্থী। মাঠপর্যায়ে জয় কেড়ে নিতে প্রচারণায় গতি বাড়িয়েছেন এসব প্রার্থীরা। এর মধ্যে জৈন্তাপুর উপজেলার ৫টি ইউনিয়নে বিএনপির ১০ নেতা ভোটের মাঠে প্রতিদ্বন্দ্বিতায় নেমেছেন। এই উপজেলায় অনেকটা প্রকাশ্যেই বিএনপির দলীয় নেতারা প্রার্থীর পক্ষে মাঠে রয়েছেন।

প্রার্থী তালিকা ঘেঁটে দেখা গেছে, গোয়াইনঘাটে রুস্তমপুর ইউনিয়নে প্রার্থী হয়েছেন বিএনপি নেতা শাহাব উদ্দিন শিহাব ও আবুল কালাম আজাদ, ফতেহপুর ইউনিয়নে বিএনপি নেতা মিনহাজ উদ্দিন, লেঙ্গুরা ইউনিয়নে বিএনপি নেতা গোলাম কিবরিয়া সাত্তার, নন্দিরগাঁও ইউনিয়নে বিএনপি নেতা মামুনুর রশীদ মামুন ও তোয়াকুল ইউনিয়নে বিএনপি নেতা খালেদ আহমদ।

সিলেটের দক্ষিণ সুরমার ৫টি ইউনিয়নের মধ্যে সিলাম ইউনিয়নে বিএনপি নেতা আত্তর আলী ও ফয়জুল হক প্রার্থী হয়েছেন। লালাবাজার ইউনিয়নে বিএনপি নেতা আমিনুর রহমান শিফতা ও মোগলাবাজার ইউনিয়নে বিএনপি নেতা ময়নুল ইসলাম মঞ্জুর মাঠে রয়েছেন।

জৈন্তাপুর উপজেলার জৈন্তাপুর ইউনিয়নে ইউনিয়ন বিএনপির সভাপতি আব্দুল আহাদ ও বিএনপি নেতা আলমগীর হোসেন প্রার্থী হয়েছেন। চারিকাটা ইউনিয়নে বিএনপি নেতা ও বর্তমান চেয়ারম্যান শাহ আলম চৌধুরী, উপজেলা স্বেচ্ছাসেবক দলের আহ্বায়ক আলতাফ হোসেন বিলাল ও বিএনপি নেতা হেলাল উদ্দিন প্রার্থী হয়েছেন। দরবস্ত ইউনিয়নে প্রার্থী হয়েছেন বিএনপি নেতা বাহারুল ইসলাম বাহার। তিনি এ ইউনিয়নের বর্তমান চেয়ারম্যান। এছাড়াও ওই ইউনিয়নে বিএনপি নেতা খায়রুল কবির প্রার্থী হয়েছেন। ফতেহপুর ইউনিয়নে বর্তমান চেয়ারম্যান প্রার্থী হয়েছেন বিএনপি নেতা আব্দুর রশিদ। চিকনাগুল ইউনিয়নে বিএনপি নেতা ও সাবেক চেয়ারম্যান এবিএম জাকারিয়া এবারও প্রার্থী হয়েছেন।

উল্লেখ্য, তৃতীয় ধাপে ১ হাজার ৭০০ ইউনিয়নে ভোটগ্রহণ অনুষ্ঠিত হবে। এর মধ্যে সিলেট জেলার ১৬ টিসহ বিভাগের ৭৭ ইউনিয়ন রয়েছে। সিলেট জেলার ইউনিয়নগুলো হচ্ছে- দক্ষিণ সুরমা উপজেলার সিলাম, লালাবাজার, জালালপুর, মোগলাবাজার ও দাউদপুর ইউনিয়ন। জৈন্তাপুর উপজেলার জৈন্তাপুর, চারিকাটা, দরবস্ত, ফতেপুর ও চিকনাগুল ইউনিয়ন। গোয়াইনঘাট উপজেলার ডুবারি, তোয়াকুল, নন্দিরগাঁও, ফতেপুর, লেংগুড়া ও রুস্তমপুর ইউনিয়ন।অপরদিকে, বিভাগের আরও ৬১ ইউনিয়নে ওইদিন ভোটগ্রহণ অনুষ্ঠিত হবে।

সেগুলো হচ্ছে- সুনামগঞ্জ জেলার সদর উপজেলার রঙ্গারচর, সুরমা, জাহাঙ্গীরনগর, মুল্লাপাড়া, কাঠইর, মোহনপুর, গৌরাং, লক্ষণশ্রী ও কুরবাননগর ইউনিয়ন। দক্ষিণ সুনামগঞ্জ উপজেলার জয়কলস, শিমুলবাগ, পাথারিয়া, দরগাহপাশা, পূর্বপাগলা নিয়ন, পশ্চিম পাগলা, পূর্ব বীরগাঁও, পশ্চিম বীরগাঁও ইউনিয়ন।

মৌলভীবাজার জেলার বড়লেখা উপজেলার বর্ণি, দাশেরবাজার, নিজবাহাদুরপুর, উত্তর শাহবাজারপুর, দক্ষিণ শাহবাজপুর, বড়লেখা, তালিমপুর, দক্ষিণভাগ উত্তর, সুজানগর, দক্ষিণভাগ দক্ষিণ ইউনিয়ন। কুলাউড়া উপজেলার বরমচাল, ভুগশিমইল, ভাটেরা, জয়চন্ডি, ব্রাক্ষ্মণবাজার, কাদিপুর, কুলাউড়া, রাউতগাঁও, টিলাগাঁও, হাজিপুর, শরিফপুর, পৃথিমপাশা, কর্মধা ইউনিয়ন।
হবিগঞ্জ জেলার নবীগঞ্জ উপজেলার বড়ভাকৈর পশ্চিম, বড়ভাকৈর পূর্ব, ইনাতগঞ্জ, দিঘলবাঘ, আউশকান্দি, কুর্শি ইউপি, করগাঁও, নবীগঞ্জ সদর, বাউশা, দেবপাড়া, গজনাইপুর, কালিয়ারভাঙা ও পানিউনদা ইউনিয়ন। হবিগঞ্জ সদর উপজেলার লুকরা, রিচি, তেঘরিয়া, পৈল, গোপায়া, রাজিউড়া, নিজামপুর ও লস্করপুর

সংবাদটি শেয়ার করুন

সংবাদটি পড়া হয়েছে 81 বার

যোগাযোগ

অফিসঃ-

উদ্যম-৬, লামাবাজার, সিলেট,

ফোনঃ 01727765557

voiceofsylhet19@gmail.com

সামাজিক যোগাযোগ

সম্পাদক মন্ডলি

ভয়েস অফ সিলেট ডটকম কর্তৃক সর্বস্বত্ব সংরক্ষিত। অনুমতি ছাড়া এই ওয়েবসাইটের কোনো লেখা, ছবি ও বিষয়বস্তু অন্য কোথাও প্রকাশ করা সম্পূর্ণ বেআইনি।